চা পাতা রাস্তায় ফেলে নির্মম প্রতিবাদ; দাম পাচ্ছে না চাষীরা

109
baniktube.com

 

নিউজ ডেস্ক : নিলামে দাম না পাওয়ার অভিযোগে, বড় ৭ পাতার, কাঁচা চা পাতা ফেরত দিচ্ছে পঞ্চগড়ের কারখানাগুলো। তাদের নির্দেশনা, চায়ের গুণগত মান ঠিক রাখতে হলে সরবরাহ করতে হবে ৩ থেকে ৪ পাতা। ন্যায্যমূল্যের দাবিতে চাষীদের আন্দোলনের মুখে, কেজিপ্রতি ১৮ টাকা নির্ধারণ করে চা মূল্য নির্ধারণ কমিটি।

 

 

কিন্তু চাষীরা বলছেন, নির্ধারিত মূল্যে ৩ থেকে ৪ পাতা সরবরাহ করলে উৎপাদন খরচওটুকুও থাকবে না তাদের।রাস্তায় চা পাতা ফেলে দিয়ে অন্য রকম এক প্রতিবাদ করেছে পঞ্চগড়ের চা চাষীরা। তারা মানব বন্ধন করেছে রাস্তায় কাচা চা পাতা ফেলে।

 

কারখানা কর্তৃপক্ষের ভাষ্য মতে, চাযের গুনগত মান বজায় রাখতে সরবরাহ করতে হবে ৩ থেকে ৪ পাতা। বড় ৭ পাতা সংগ্রহ করলে চায়ের গুনগত মান বজায় থাকবে না। মেশিনে চা পাতা সংগ্রহ না করে কাচি দিয়ে ৭ পাতা সংগ্রহ করছে চা চাষীরা।

 

১৯৯৬ সাল থেকে পঞ্চগড়ের সমতল ভূমিতে শুরু হয় চা পাতার আবাদ। বর্তমানে ঐ চা আবাদ-কে কেন্দ্র করে পরিচালিত হচ্ছে বেশ কয়েকটি চা উৎপাদনকারী কোম্পানী

- বিজ্ঞাপন -